ক্যাটেগরিঃ ব্লগ

 

অবশেষে সম্পসারিত হচ্ছে মন্ত্রিসভা।আকস্মিকভাবে কেন সম্পসারিত হচ্ছে মন্ত্রিসভা এমন প্রশ্ন এখন সবার।ব্যর্থতা ঢাকার জন্য?সম্পসারিত করা মানে সরকারের ব্যায় বৃদ্ধি।মিডিয়া কর্মীদের ব্যস্ততা বাড়া। আমাদের কি লাভ?অনেকে হয়তো মন্ত্রিসভায় অন্তর্ভুক্ত হবার পর বলবেন শেষ বেলার মন্ত্রি আমি,আমার তেল ও গ্যাস কম।কিন্তু যেতে হবে বহুদূর।কিন্তু কিছু প্রশ্ন আমার মাথায় ঘুরপাক খাচ্ছে।

১।শেষ বেলায় মন্ত্রিসভায় রদবদল কেন?
ব্যস্ততার দায় নিয়ে কি রদবদল?নাকি সরকারের বিপক্ষে ইতিবাচক কথা বলা বন্ধ করতে রদবদল?কারণ আজকাল তোফায়েল,ইনু ও মেনন সাহেব কিছু ইতিবাচক কথা বলেন যা,সরকারের পছন্দ হচ্ছে না।এখানে আরো একটা উদাহরন দেওয়া যেতে পারে সুরঞ্জিত ও ওবায়দুল কাদের কে নিয়ে।কারন ওনারা যখন বেশি কথা বলা শুরু করলেন তখন তাদের মন্ত্রিসভায় নেওয়া হল।কিন্তু প্রধানমন্ত্রী এখানে ও সফলতার দেখা পেলেন না।আমার দূষ্টিতে তোফায়েল,ইনু ও মেনন সাহেবর মুখ বন্ধ রাখতে মন্ত্রিসভায় নেওয়া হয়েছে তাদের।কারণ এই ২ জন বর্তমান সরকার ও সংসদ রেখে বা অধীনে নির্বাচনের পক্ষে নয়।এবং বর্তমান সরকারের কোন ব্যস্ততার দায় নিতে রাজি নয়।প্রধানমন্ত্রী এখন জোর করে বর্তমান সরকারের আধীনে নির্বাচন করবেন তা পানির মত পরিষ্কার।দেখার বিষয় তোফায়েল,ইনু ও মেননরা এখন কি করেন।

২।রদবদলে আমাদের চাওয়া পাওয়া।
অর্থমন্ত্রী আবুল ভাইকে সরাতে হবে মন্ত্রিসভা থেকে।শেয়ারবাজার,বহুল আলোচিত হলমার্ক গ্রুপের ও ব্যাংকিং খাতে নানা কেলেক্কারির দায় অর্থমন্ত্রীর।তাই যত তাড়াতারি সম্ভব তার পদত্যাগ চাই।যাবতীয় কেলেক্কারির দায় অর্থমন্ত্রীর কোনভাবেই এড়াতে পারেন না।

জ্বালানি,অর্থ ও স্বাস্থ্য উপদেষ্টার পদত্যাগ করা এখন ফরজ।কারণ বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকে নানা অনিয়মের অভিযোগ আছে তাদের বিরুদ্ধে।

জালানি উপদেষ্টা গ্যাস ও বিদ্যুৎ সংযোগ বন্ধ রেখে কিছু অসৎ কর্মচারী পকেট ভারি করার ব্যবস্তা করেছেন এবং আই,পি,এস ও এল,পি গ্যাস কোম্পানি মালিকদের করেছেন লক্ষ থেকে কোটি পতি।

স্বাস্থ্য উপদেষ্টা বিরুদ্ধে হলমার্ক কেলেক্কারির সাথে যোগযোগ আছে বলে অভিযোগ উঠেছে।হলমার্ক গ্রুপের চেয়ারম্যান জেসমিন ইসলাম (তানভীর মাহমুদের স্ত্রী) ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক তানভীর মাহমুদকে কোটি টাকা খরচ করে বিশাল সংবর্ধনা দিয়েছেন স্বাস্থ্য উপদেষ্টা।তাই সাস্থ্য উপদেষ্টার পদত্যাগ চাই।

মসিউর রহমান যিনি অর্থ উপদেষ্টা।তার বিরুদ্ধে আছে সময়ের সবচেয়ে আলোচিত পদ্মা সেতুতে দুনিতীর অভিযোগ।উপদেষ্টা।তাই অর্থ উপদেষ্টার পদত্যাগ চাই।