ক্যাটেগরিঃ স্বাস্থ্য

শরীর ঠান্ডা বা গরম লাগা অনেকটাই নির্ভর করে আপনি কি খাচ্ছেন তার উপর। তাই এই শীতে আমার মত যারা ঠান্ডা সহ্য করতে পারেন না, তাদের জন্য রইলো কিছু টিপস, ট্রাই করে দেখতে পারেন। সাথে আছে কিছু খাবার যেগুলো খেলে ঠান্ডা বাড়াবে বই কমবে না।

দৈনন্দিন খাবারের তালিকায় সাথে যোগ করুন বাদাম, ছোলা এবং তিল, মৌরি ও কুমড়ার বীজ —রান্না করে বা এমনি এমনি খেতে পারেন। শরীর গরম করার পাশাপাশি এরা খাবার হজমেও সাহায্য করে।

বিভিন্ন প্রকার মসলা যেমন দারুচিনি (চায়ের সাথে), লবঙ্গ (মাউথ ফ্রেশনার ও জীবানুনাশক), আদা (সব্জি, স্যুপ বা তরকারি রান্নায় ও চায়ে) ও গোলমরিচ (বাড়তি লবনের বদলে ব্যবহার করুন) আপনাকে অবশ্যই ঊষ্ণতা দেবে।

মধু এই কাজে বিশেষ উপকারি। চিনির বিকল্প এই প্রাকৃতিক উপাদান আমাদের ত্বকের উপকার করে।

পেঁয়াজের পাশাপাশি রসুনের ব্যবহার বাড়িয়ে দিন। শরীরে বাড়তি কোলেস্টেরল কমাতে এরা সাহায্য করে। রসুন হৃদযন্ত্রের এক মহৌষধ।

ঠান্ডায় নাক বন্ধ হয়ে গেলে একটু কালোজিরা ছোট একটা কাপড়ে নিয়ে নাকের সামনে নিয়ে টানুন। এই কাজে রসুনও ব্যবহার করা যায়।

প্রতিদিন সবজি ফলমূল খেলে শরীরের উষ্ণতা বাড়ে এবং রক্ত সঞ্চালন, হজম শক্তি বৃদ্ধিতেও উপকারি।

যা খাবেন না

শরীরকে চনমনে রাখতে চাইলে কিছু খাবার আপনাকে বাদ দিতে হবে এবং রাতে বেশি খাওয়া যাবেনা। যেসব খাবার না খেলে ভালো সেগুলো হচ্ছে ব্রেড, শসা, মাখন, চিপস, ঠান্ডা পানীয়, ভাত (বিশেষ করে রাতে), মদ

চেষ্টা করে দেখুন কি হয়!

ট্যাগঃ:

মন্তব্য ১ পঠিত