ক্যাটেগরিঃ নাগরিক আলাপ

পদ্মা সেতু নিয়ে আমার কোন মাথা ব্যাথা নেই। পদ্মা সেতু না হলে আমার তেমন কোন ক্ষতি হবে তাও না বরং সেতু হলে উপকারই হবে বটে। পদ্মা নদীর ওপাড়ে গ্রামের বাড়ী না হওয়ায় এই দুর্ভোগ থেকে অনেকটা রেহাই পেয়েছি জন্মসূত্রেই। পদ্মা সেতুর দুর্নীতি নিয়ে আবুলে কি করেছে বাবুলে কি করবে সেদিকে লক্ষ্য রাখার সময় নাই। নিজে আছি দৌড়ের…..। তবে আজকে ফেসবুকে একটা স্ট্যাটাস দেখে অবাক।

ক্লাস ওয়ানে পড়–য়া এক মেয়ে, নাম তাসমি, বয়স ৭-৮ বছর হবে। তাসমি এবার ঘোষণা দিয়েছে এবার ঈদে পরিবারের সদস্যদের কাছ থেকে যে পরিমান অর্থ ঈদের সালামী পাবে সে পুরো টাকাগুলো পদ্মা সেতু নির্মাণের জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে দিয়ে দিবে।

এইটুকু বাচ্চা মেয়ের দেশের জন্য এমন উদারতার কথা শুনে আমি অবাক। আপনারা নির্বাক হবেন কি না জানি না। তবে আবুল বাবুলদের ওর কাছ থেকে শেখা উচিত।

এখন আমার কথায় আসি…

আসছে ঈদ..। ধনী গরীব সবাই ঈদের কেনা কাটায় নিজেদের সামর্থ অনুযায়ী অর্থের একটা অংশ বরাদ্দ রেখেছেন। ইচ্ছে করলে আপনি পারেন ঈদের বাজেট কমিয়ে পদ্মা সেতুর জন্য একটা বাজেট করতে। যদি কেউ পদ্মা সেতুর জন্য অর্থ দান করেন অবশ্যই জেনে নিবেন টাকা গুলো আবুল বাবুলের পকেটে যাচ্ছে না তো?