ক্যাটেগরিঃ জনজীবন

01_eidjourney_launch_sadarghat_110916_012

ঈদকে সামনে রেখে নগরবাসী ছুটছে তার আপন গন্তব্যে। নাড়ীর টানে ঘরে ফেরা এসব মানুষ শত ভোগান্তী উপেক্ষা করে ও ছুটছে তার শৈশবের স্মৃতি বিজড়িত নিজ গন্তব্যে। ঈদ আসলেই নগরবাসী ছেড়ে যায় ঢাকা শহর। আর এ সময়টাতে বাস,ট্রেন,লঞ্চে উপছে পরা মানুষের ভিড়। ঘন্টার পর ঘন্টা জ্যামে আটকে আছে। তবু নিজের গন্তব্যে পৌছানোর আকুলতা, ব্যাকুলতায় হাল ছাড়েনি যাত্রী সাধারণ।

32_eid%20journey_komolapur_11092016_0013

লঞ্চ, ট্রেনে মানুষের গাদাগাদি, জীবনের রিস্ক তবু পৌছাতে হবে বাড়ি- তাইতো পথ চলা। ঈদ আসলেই যাতায়াত ব্যবস্থায় সবচেয়ে বেশী দূর্ভোগ পোহাতে হয়।পরিবহনে বেশী ভাড়া আদায়ের ও অভিযোগ। ঘন্টার পর ঘন্টার ট্রেন,বাসের অপেক্ষা। এত কিছুর পরও আপন মানুষগুলোর সান্নিধ্য লাভের আশায় ছুটে চলেছে জনতা। এই আবেগের অনুভূতি লিখে বোঝাবার মত নয়! এ আবেগ উপলব্ধি করার।

আনন্দ,উল্লাস করতে নিজের মাতৃকোলের দিকে ছুটে চলা।উৎসবের আমেজে উৎফুল্ল জনতা। রাত পোহালেই পবিত্র ঈদ- উল আযহা। ঈদের আনন্দকে বাড়িয়ে দিতে নিজের আত্মীয়স্বজনদের সাথে ঈদের জামাত পড়তে পারা এ এক অনাবিল আনন্দ। পৃথিবীর সমস্ত ঝুঁকিকে হার মানিয়ে প্রিয় মানুষদের সান্নিধ্য লাভের আশায় নগর বাসী ট্রেনে,বাসে,লঞ্চে চেপে ছুটে চলেছেন আপন গন্তব্যে।

01_eid_journey_train_airport_12092016_014
কথা বলেছিলাম ঈদে বাড়ি ফেরা কিছু যাত্রীর সাথে।স্মৃতিচারণ করেছিলেন সেসব দিনগুলোর, যে দিনগুলো আর ফিরে পাবার নয়। দুইটা ঈদে ই সাধারনত ব্যস্থ নগরীর জনতারা নিজ গাঁয়ে ছুটে আসেন শত জুট-জামেলা উপেক্ষা করে। ইট-পাথরের নগরীর চেয়ে প্রকৃতির শ্যামল মায়ায় নিজেকে উজাড় করে দিতে ই ছুটছে মানুষ। “মানুষে, মানুষে যদিও নেই তেমন সেতু বন্ধন। তবু ও কোরবানী ঈদের পশু কোরবানীর সাথে সাথে মনের পশু গুলোকেও কোরবানী করবে মানুষ, এটাই প্রত্যাশা”।