ক্যাটেগরিঃ প্রশাসনিক

img_20161007_152110

ভাটিয়ালপুর চৌরাস্তা হয়ে নয়ারহাট, আইলের রাস্তা, হকমার্কেট, মদিনা মার্কেট, চান্দ্রা চৌরাস্তা সড়কটিতে প্রতিদিন অসংখ্য যানবাহনের যাতায়াত। মাল বোঝাই কাভার্ড ভ্যান, সিএনজি, অটোরিক্সা, যাত্রীবাহী বাস সহ হাজারো যানবাহনের চলাচল। দূর্ভাগ্য রাস্তাটির এতটা ভয়াল দশা যে প্রতিদনি ই রাস্তাটিতে মাল বোঝাই ট্রাক সহ ভারি যানবাহন দূর্ঘটনার স্বীকার হয়। বৃষ্টির ফলে রাস্তাটিতে গর্ত সৃষ্টি হওয়ায় এক একটি গর্ত যেনো এক একটি মাছের খামারে রূপান্তরিত হয়েছে। এ গুরুত্বপূর্ন রাস্তাটি ব্যাবহার করে হরিণা ঘাট হয়ে খুনলা রুটের যাত্রীদের চলাচল। হাইমচরের যাত্রীদের এ রুট ধরে চলাচল। প্রতিদিন এ রাস্তাটিকে রুট ধরে পণ্য বোঝাই কাভার্ড ভ্যান, ডিস্ট্রিক ট্রাক, পিকাপ ভ্যানের চলাচল। কিন্তু ভাঙা রাস্তা আর ভয়ংকর গর্তের কারনে প্রতিদিন রাস্তাটিতে দূর্ঘটনার স্বীকার হয় ভারি যানবাহনগুলো।

20161007_184446

ভুক্তভোগী চালকরা অভিযোগ করেন তাদের যেন দেখার কেঊ নেই! বিপাকে পরা এ ট্রাক চালকরা বলেন মাল বোঝাই গাড়ি বড় বড় কারণে কাত হয়ে পরেযায়। বিশেষ করে বরর্ষা মৌসুমে দূর্ভোগটা বেশী পোহাতে হয়। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় গর্তের মধ্যে পরে আছে একটি মাল বোঝাই ট্রাক। রাস্তার বাকল উঠে রাস্তাকে জেনো লাগছে কোন চাষাবাদের জমি। ভাটিয়ালপুর টু চান্দ্রা রুটের সিএনজি চালক সালাম। প্রতিদিনই সে এই রুটে সিএনজি দিয়ে যাত্রী আনা-নেওয়া করে।সে জানায় আজ অনেক দিন ই রাস্তাটির ভয়াল দশা। বর্ষার আগে নাকি রাস্তাটিতে কাজ ্ও হয়েছিলো । ভাগ্যের নির্মম পরিহাস রাস্তার আস্তর উঠে রাস্তাটি এখন দিন দিনই চলাচলের অনুপযোগি হয়ে যাচ্ছে। অনেক সময় দূরর্ঘটনায় ও পরতে হয় আমাদের।গাড়ির ইঞ্জিনে গর্তে জমে থাকা পানি ঢুকে প্রায়সই বিকল হয়ে যায় যানবাহন।

মঞ্চুর আহম্মদ চা বিক্রেতা, নয়াহাট বাজারে আজ ৮ বছর চা বিক্রি করছেন। প্রতিদিনই তিনি দু-একটি গাড়ি রাস্তায় বিকল হয়ে দূর্ঘটনার স্বীকার হতে দেখেছেন।তিনি বলেন এ রাস্তা ঠিক হয় কিন্তু বেশী দিন ভাল থাকে না। কেনো আমাদের এ ভোগান্তী তা জানতে চান কতৃপক্ষের নিকট।

এই তো আপনার চোখের সামনেই তো গাড়ি এখান উলটাইয়া গেলো। ভাঙা রাস্তায় উক্ত এলাকার ছাত্র/ছাত্রীরাও পড়েছে বিপাকে। অচিরেই রাস্তাগুলো সংস্কার হয়ে চলাচলের উপযোগী হয়ে ভোগান্তী থেকে মুক্তি মিলবে পথচারীদের এটা ই প্রত্যাশা এলাকাবাসীর।

img_20161007_150851