ক্যাটেগরিঃ আর্ত মানবতা

 

img_21308689841293

“মানুষ মানুষের জন্য, জীবন জীবনের জন্য। একটু সহানুভুতি কি মানুষ পেতে পারে না। ও বন্ধু! মানুষ মানুষের জন্য” ভোপেন হাজেরিকা তার বিখ্যাত গানের মধ্যদিয়ে মানবতার জয়গান গেয়েছিলেন। যা কিনা আজও কোটি কন্ঠে বেজে উঠে। তেমনই এক অকৃতিম ভালবাসা বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়েছেন চট্টগ্রাম ডিবি পুলিশের কনস্টেবল শের আলী।

গত ১১ ডিসেম্বর চট্টগ্রাম- কক্সবাজার মহাসড়কে যাত্রীবাহী একটি গাড়ি দূর্ঘটনার স্বীকার হয়। দূর্ঘটনায় অনেক লোক আহত হয়। সেখানে সবাই যখন ছবি তুলতে ব্যস্ত, ঠিক তখন এক ব্যক্তি কয়েকঘন্টা গাড়ি চাপা পরা শিশুকে বুকে তুলে হাহাকার, চিৎকার করে ছুটে চলেছেন হাসপাতালের খোঁজে! হাউমাউ কান্না, অস্রুশিক্ত দুনয়নে অঝোড় কেঁদে চলেছেন এক ব্যক্তি। তখনো অনেকেই ছবি তুলতে ব্যস্ত।

সবাই ভেবে নিয়েছেন মেয়েটির বাবা বোধহয় তিনি। আসলে তিনি মেয়েটির কেউই না। তিনি বাংলাদেশ পুলিশের গোয়েন্দা শাখা চট্টগ্রাম ডিবি পুলিশের কনস্টেবল শের আলী।

img_21319735037826
ইট পাথরে দেয়ালে বেড়ে উঠা ডিজিটাল মানুষগুলো কেমন যেনো স্বার্থপর হয়ে গিয়েছিলো। নানা রকম কুকর্ম, রক্তপাত আর অন্যের ক্ষতির চিন্তায় সদা যখন আমরা ব্যস্ত, ঠিক তখন শের আলী সকলের চোখ খুলে দিয়েছেন। আবেগ ধরে রাখতে পারেননি পুলিশের এ গর্বিত সদস্য।

পুলিশ জনগণের বন্ধু সে কাজটি ষোলকলা পূর্ণ করে বুঝিয়ে দিলেন পুলিশের গোয়েন্দা শাখার এ সামান্য কনস্টেবল। যে কাজটি অনেক বিজ্ঞলোকেরা তাকিয়ে অনুভব করছিলেন সে কাজটি নিজের কাঁধে নিয়ে করে দেখিয়েছেন শের আলী। ফেসবুকে শের আলীর এই ছবি ভাইরাল হয়ে পরে। দেশের বড় বড় কর্তা ব্যক্তিরা বাহবা দিতে থাকে তাকে। তথ্য ও যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহম্মেদ পলক, তার ফেসবুকে লিখেছেন, শের আলী আমাদের গর্ব। এড. দেওয়ান মারুফ সিদ্দিক লিখেছেন, “মানবতার বর পুত্র” শের আলীর জন্য বাংলাদেশ আজ গর্বিত।
screenshot_2016-12-12-14-47-51

“সুদিপ্ত চাঁদপুরের ক্রীড়া সম্পাদক, বিডিনিউজ২৪ এর নাগরিক সাংবাদিক, রিফাত কান্তি সেন লিখেছেন- পুলিশ জনগণের বন্ধু, ভালমানুষ আছে বলেই আজও দূনিয়াটা এত সুন্দর। শের আলী তুমিই বাংলার মানুষের চোখ খুলতে সক্ষম হয়েছো। তোমাকে বিনম্র শ্রদ্ধা নিবেদন করছি।” এছাড়া ফেসবুকের প্রতিটি ওয়ালে এখন শের আলীর বন্ধনায় মুগ্ধ সকলে।

হানাহানি, মারামারি- রক্ত যেনো আমাদের পেছনে আঠার মত লেগে আছে। সেই জরাজীর্ণতায় ঘেরা জীবনের দ্বারপ্রান্তে দাড়িয়ে শের আলী প্রমান করে দিয়েছেন এখনো দুনিয়ায় ভাল মানুষের অভাব নেই। যে মানুষটার সত্যিকার আবেগে বিস্মিত করেছে গোটা দূনিয়াকে! শের আলীকে জাতীয় বীর ঘোষণা করা হোক। শের আলী মানবতার নতুন এক দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন।

মানবতা নাকি হুমকির মুখে। আধুনিকতার মারপ্যাচে আমরা এখন যন্ত্র মানবে রুপান্তরিত হয়ে গেছি। কেউ কাউকে দেখা সময় নেই। সবাই সবাইকে নিয়ে ব্যস্ত। কে পরে মরলো, কে না খেয়ে মরলো, কে এক্সিডেন্ট হয়ে মরলো সে খবর নেয়ার সময় নেই আমাদের।

কিন্তু সকল প্রতিকুলতাকে পিছনে ফেলে মানবতায় জয়গান গাওয়া শিখিয়ে দিলেন শের আলী। আর তাইতো শের আলীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ গোটা দেশ। বিডিনিউজ২৪, বাংলানিউজ, জাগোনিউজ সহ দেশের বেশিরভাগ গণমাধ্যমেই শের আলী প্রশংসায় পঞ্চমুখ।

অচিরেই শের আলীকে জাতীয় বীর ঘোষনা করা হোক। আর মনে মনে একথাটা লালন করা হোক মানুষের বিপদে ঝাঁপিয়ে পড়বে মানুষ এটাই হোক আমাদের আগামীর মূলমন্ত্র।