ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি

 

আমি নেতা নই। আমি একজন কর্মী। ২০০৫ সাল থেকে এখন পর্যন্ত বিভিন্ন সংগঠনের সাথে আমি যুক্ত। শিশুতোষ, স্কুল-কলেজভিত্তিক, আঞ্চলিক, জাতীয় বিভিন্ন সংগঠনে কর্মী হিসেবে কাজ করেছি। এই কারণে অনেক নেতাকে কাছ থেকে দেখার ও জানার সুযোগ পেয়েছি। অনেক নেতাকে দূর থেকে দেখেছি। কিন্তু কিছু প্রশ্ন কুরে কুরে খাই, নেতা তো এমন হবার কথা নয়।

নেতা হচ্ছেন সেই মানুষ যিনি পথ জানেন, পথ চলেন এবং পথ দেখান। এগোবার জন্য নেতা দরকার, পথ প্রদর্শক দরকার। তাই ভ্রান্ত নেতার উশকানিতে পড়তে চাইনা। নিজের জীবন, আদর্শ, আবেগ, দেশপ্রেম এগুলো বরবাদ করতে চাইনা। আমি চাই একজন আদর্শ নেতা, একজন মনের মতন নেতা।

আমি মনে করি একজন ভালো নেতার প্রধান গুন হচ্ছে তার সমবয়সী বা কাছাকাছি বয়সের কর্মীর উপস্থিতি। এর মাধ্যমে নেতার উত্তরাধিকার তৈরির মানসিকতা প্রকাশ পাই। না থাকলে বুঝতে হবে নেতা তার অবস্থান হারানোর ব্যাপারে শঙ্কিত। একই সাথে নেতার প্রতি তার সহপাঠীদের সমর্থন থাকতে হবে- যা নেতার গ্রহণযোগ্যতা বাড়ায়।

আমি এমন কোন নেতা চাইনা যিনি পকেট সংগঠন চালান। পকেট সংগঠন বলতে আমি বোঝাচ্ছি এমন সংগঠন যেখানে নেতা যখন ইচ্ছা তখন সুবিধামত কর্মীপরিষদ পাল্টে ফেলেন, সিদ্ধান্ত গ্রহণে কারো তোয়াক্কা করেন না অর্থাৎ যেখানে চলে শুধুই স্বেচ্ছাচারিতা। নেতার অবশ্যই সমালোচনা সহ্য করার ক্ষমতা থাকতে হবে এবং বিতর্কের জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে।

নেতাকে সময়ের প্রয়োজনে পরিস্থিতি সাপেক্ষে অনেক সময় নিজের আদর্শের বাইরে সিদ্ধান্ত নিতে হয়। আমি বুঝি যে সেটা রাজনীতিরই অংশ। কিন্তু তাই বলে বারবার আদর্শের সাথে সমঝোতা অবশ্যই কাম্য নয়। নেতার কথার এবং কাজের মধ্যে সমন্বয় থাকতে হবে।

এমন নেতা আমি চাই। এমন একজন মানুষের অধীনে কাজ করে নিজেকে সৌভাগ্যবান এবং গৌরবান্বিত করতে চাই- স্বপ্নগুলো বাস্তবায়ন করতে চাই।