ক্যাটেগরিঃ নাগরিক সমস্যা

 

আমার বিনীত অনুরোধ থাকবে যারা পোস্ট টি পড়বেন এবং দেখবেন তারা যেন সাংবাদিক বা মিডিয়াকে বলেন একবার দেখে যেতে,আমিও তাদের সবাইকে অনুরোধ করতেছি।আমরা কতটুকুন কষ্টে যাতায়াত করতেছি। সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়কে বলব অযথা রাস্তা সংস্করন না করে আগে ড্রেনের ব্যবস্থা করেন । এই রাস্তায় বাসে চড়লে মনে হ্য় নৌকায় দোল খাইতে খাইতে বাসায় যাচ্ছি….কতই না মজা । আর রিক্সা ,অটোরিক্সা
রাত ৮টার পর আর যাবেন না মাজারের দিকে। রাতে আমাদেরকে তো ঘরে যেতেই হবে কী বলেন আপনি ? ৮টার পর বাস বন্ধ বাধ্য হয়েই হেটে হেটে বাসায় যাচ্ছি —-বৃষ্টিতে ভিজে আর জল খেলি করতে করতে সারাটা বর্ষাকাল ঘরে যেতে হবে বুঝতেছি । রাস্তার পানি শুকিয়ে গেলে উঁচুনিচু পাহাড় দেখাবে মনে হচ্ছে । উল্লেখ্য যে, রাস্তাটি বিগত এক সালে ২ বার সংস্করণ করা হয়েছিল। মাননীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর এলাকা মাজার,আজমপুর,উত্তরা। রাস্তায় জমে থাকা পানিতে গাড়ি চলার সময় যেমন ঢেউ সৃষ্টি হয়। ছোট বাচ্চারা যদি রাস্তার এ ঢেউ দেখে বলে সাগরের ঢেউ তাহলে ভুল হবেনা মনে হয়।
আপনার মন্তব্য লিখেন । অপেক্ষায় আছি ……….