ক্যাটেগরিঃ ব্লগ

খবরে প্রকাশ, এক এলাকায় নয় মাস ধরে নাকি চলছিল একটি টুর্নামেন্ট। খেলার ধারা বিবরণী, খেলায় জয় পরাজয়, আনুষঙ্গিক খবর-অখবর কিছু শোনা যায় নি এতদিন। নয় মাস পর হঠাৎ ফাইনালে এসেই গোল বেধে গেল।

জানাজানি হয়ে গেল একটি টুর্নামেন্ট চলছিল এখানে তা-ও নাকি নয় মাস ধরে।

ফাইনালের এক দল ক অন্য দল খ। (পুরো টুর্নামেন্টই দুই দলে হল নাকি আরো দল ছিল কে জানে? যে জানে জানুক আমি জানি না)

ক-দল বলল, খেলাশেষ। আমি বিজয়ী। ধবল ধোলাই করেছি তোমাকে। এবার পরাজিত হয়ে নীরবে ঘরে ফিরে যাও।

প্রতিপক্ষ খ-দল ধবল ধোলাই হয়েও বলল, কীসের পরাজয়। বরং সে ক-দলের বিরুদ্ধে অভিযোগের আঙুল তলল। বলল, খেলায় তুমি (ক-দল) নিয়ম ও শর্ত ভঙ্গ করেছ। ধবল ধোলাইয়ের কোনো কথা ছিল না।

ক-দল বলল, সব ম্যাচে টানা সব খেরায় হারলে প্রতিপক্ষের ধবল ধোলাই হয়।এটাই নিয়ম।

খ-দল বলল, কীসের ধবল ধোলাই। যে যাই বলুক আমি অপরাজিত। আমি হারব না, হারব না, হারব না।

ক-দল বলল, খেলায় সব সময় জয়ী পক্ষই অপরাজিত। অন্যপক্ষ পরাজিত। তাকে পরাজয় মেনে নিতে হয়।

খ-দল বলল, আমাদের ফ্র্যান্ডলি ম্যাচের শর্ত ছিল পরাজয় থাকবে না। ধবল ধোলাই থাকবে না। ড্র হবে খেলায়। তারপর আবার খেলা হবে। খেলা চলবে। চলতে থাকবে। দু পক্ষই অপরাজিত থাকব। তুমি ফ্র্যান্ডলি ম্যাচের শর্ত ভঙ্গ করেছো।

ক-দল বলল, আমি খেলায় জয় চাই। তাছাড়া জয়-পরাজয় ছাড়া সে আবার কেমন খেলা?

খ-দল টায়ার্ড হয়ে মাথা চলুকাতে চুলকাতে ভাবল, ফ্র্যান্ডলি ম্যাচ হলেও খেলাতো খেলাই।

ভাবতে ভাবতে ক্লান্ত অবসন্ন খ-দল এর খেলোয়াড় এক সময় ঢলে পড়ল ঘুমে। তারপর কী হলো?

নটে গাছটি মুড়োল। আমার গল্প ফুরোল।

ট্যাগঃ:

মন্তব্য ০ পঠিত