ক্যাটেগরিঃ মুক্তমঞ্চ

অনেক আশা, একাদিন বাংলাদেশ ও হবে একটি সুন্দর,সমৃদ্ধ, অগ্রগামী দেশ তথা বাঙালি জাতি হবে সভ্য, পরিশ্রমী এবং প্রজ্ঞাবান । তবে, এই কথাগুলো লিখতে ভাল লাগে এবং শুনতেই ভাল লাগে। দেশ তথা জাতি হিসেবে আমরা এখনো শত বছর পিছিয়ে আছি। স্বাধীনোত্তর দেশে আজ আমরা পরাধীন; আমরা পরচর্চায় মুখোর; আমরা অসচেতন; আমরা অসভ্য; আমরা চাটুকারি; আমরা মূর্খ জাতিতে পরিনত হয়েছি।

আমি যখন চায়ের দোকানে চা খেতে যাই, আমি যখন গণপরিবহনে ঝুলে ঝুলে পথ চলি, আমি যখন ঘন্টার পর ঘন্টা জানযট সহ্য করি তখন লোকমুখে শুনতে পাই হতাশার গল্প, অন্যের উপর দোষ চাপিয়ে দেয়া, রাজনৈতীক নেতাদের গলাগাল দেওয়া ইত্যাদি। আমরা কখনো কি চিন্তা করি এর জন্য কে দায়ী ? যখন নির্বাচন আসে তখন আমরা টাকা নিয়ে ভোট দেই তখন আমারা টাকার জন্য হুশ হারিয়ে ফেলি; অতএব তারা যে জনগণের সেবা করবে সেটা আপনি কি করে আশা করেন। এখন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করা মানে কোটি টাকার হিসেব কোষতে হয়। আমি আমকেই দোষ দেই কারণ আমি রাজনীতি পছন্দ করি না; সুতরাং এই স্থানটা তো আর খালি থাকবে না প্রকৃতির স্বাভাবিক নিয়মে তা পূরণ হবে। তথাপি হা হুতোশ করে কোন লাভ নেই। এই অবস্থা তো আর এক দিনে সৃষ্টি হয় নি, স্বাধীনতার পর থেকেই আমরা নিজেকে নিয়ে ব্যস্ত। আমারা মুখে বলি আমরা দেশকে ভালবাসি, আমরা অমুক চেতনায় বিশ্বাসী, তমুক চেতনায় বিশ্বসী; উপরন্তু আমরা স্বার্থবাদী যেটা আমাদের পক্ষে আসে সেটাই আমরা করি বকি সব আমাদের ফাঁকা বুলি।

বর্তমানে সরকার নানা উন্নায়ন প্রকল্প হাতে নিয়েছে এবং অনেকগুলো চলমান, যেগুলো আবশ্যই প্রশংসার দাবিদার তবে প্রশ্ন থেকে যায় প্রকল্প কতটুকু বাস্তবায়ন হচ্ছে? কাজের মান কতুটুকু? প্রকল্প বাস্তবায়নে সাধারণ জনগণের জীবনযাত্রায় কতটুকু প্রভাব ফেলছে?

এসব প্রশ্নের উত্তর খুঁজে পেতে আপনাকে অনেক কষ্ট করতে হবে না, আপনি হয়ত তা প্রতিনিয়তই অনুধাবন করছেন। তবে তাতে কার কী আসে যায়। যাই হোক দেশে যতটুকুই কাজ হচ্ছে তা কী আমরা যথাযথ ভাবে ব্যবহার করছি? মোটেই না কারণ তা তো সরকারী সম্পত্তি। এগুলো নষ্ট কারলে কার বাবার কী? যেখানে আমরা নিজের অধিকার নিয়ে নিজেই সচেতন না সেখানে সরকারের কী? এই যেমন আমি এত সব কথা অনারগোল লিখেই যাচ্ছি তাতে জাতি কতটুকু উপকৃত হচ্ছে? বোধ হয় শূন্য। প্রকৃত পক্ষে আমরা কাজে নয় কথায় পটু। যতদিন পর্যন্ত আমরা আমাদের অধিকার সম্পর্কে সচেতন না হব, সরকারকে জনগণের কাছে জবাবদিহি করেতে না পারবো ততদিনে আমাদের আবস্থার কোন পরিবর্তন হবে বলে মনে হয় না।