ক্যাটেগরিঃ নাগরিক সমস্যা

না কোন ফেরিওয়ালা না। আমি বলছি যারা দেশ-বিদেশ ঘুরে ব্যাবসা করেন।এ রকম বহু মানুষ আছেন যারা এখানে ঘুরতে আসেন। সাথে নিয়ে আসেন দেশীয় কাপড়,ফল,তেল……..। একটাই কারন। এখানে বিক্রী করা। আসতে আবার কাস্টমস আছে।ধরা পরলে কিছু দিতে হয়।এর পর বেচা।আবার যখন ফিরবেন তখন নিয়ে যাবেন এদেশের কিছু জিনিস। এর মাঝে যা থাকে তা এ লাভ।কিনতু আমাদের দেশের কাস্টমস। যদি কাউকে পায় তো তার দফা রফা। আইনের মার প্যাঁচে ফেলে এমন করবেন যে তার লাভ তো দূরে, আসল ও আর থাকে না।এমনিতেই বিমান ভাড়া বাড়তি। তাদের সাথে কথা বলে জানলাম। তারা কেউই সরকারের ট্যাক্স ফাকি দিতে চান না।কারন যে টাকা উনারা ঘুষ দেন কাস্টমসকে তার থেকে আরো কম টাকা ট্যাক্স আসে।কিনতু কাস্টমস হাউজের মার প্যাঁচে পরে এই জরিমানা সেই জরিমানা দিতে দিতে তারা হয়ে যায় শেষ।লাভের আশা তো থাক। আসল ও চলে যায়।ফলে তাদের উপর ভরসা করে থাকা পরিবারটির কি হয় তা কি এই কাস্টমস কর্তৃপক্ষ ভেবে দেখেন?…………..এভাবে আমলা তান্ত্রিক জটিলতায় জর্জরিত দেশ।……আমাদের কাস্টমস হাউসের কিছু বাস্তব কথা নিয়ে লিখব আমার আগামি লিখা……..