ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি

আমাদের রাজনীতিবিদরা মরিয়া হয়ে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন জনগনের উপকারের জন্য। বেসরকারি রাজনীতিবিদরা জনকল্যাণে রাস্তা অবরোধ করেন,জনগনের গাড়ী পোড়ান, হরতাল দিয়ে জনগনের পেটে লাথি মারেন আর সরকারি রাজনীতিবিদরা সেতু গিলে ফেলে,রাস্তা না করে বস্তা ভরে টাকা নিয়ে যান,ব্যাংকের টাকা লোপাট করেন,দরকার হলে দু-একটা গুম টুম করে ফেলে।রাস্তায় লম্বা করে বিদ্যুতের খাম্বা গাড়েন,ট্রাকে করে অবৈধ অস্ত্র চালান করেন। বেসরকারিদের বিরুদ্ধে পুলিশ লেলিয়ে দেন, গ্রেনেড় হামলা করে নিরীহ মানুষের জীবন কেড়ে নেন। সবাই সব কিছু করেন জনগনের জন্য। প্রতি পাঁচ বছর অন্তর তাদের ভাগ্য পাল্টায় সরকারিরা বেসরকারি আর বেসরকারিরা সরকারি। দেশের বিধাতা পাল্টায়,দুবৃত্ত পাল্টায়, ঘটনা পাল্টায় না।একদলের হাতে ঝান্ডা, অন্যদলের পিঠে ডান্ডা।ঝান্ডা আর ডান্ডা হাত ও পিঠ বদলায়,জনগনের ভাগ্য বদলায় না।

একদলের সময় মানুষের লাশ ২০ টুকরা হয় অন্য দলের সময় ৪০ টুকরা।একদল হত্যা করে আর অন্য দল গুম করে। একদল পুড়িয়ে মারে আরেক দল কুপিয়ে মারে। কোথাও ফালুরা কোথাও আবুলরা।কেউ করপোরেট থেকে রাজনীতিতে কেউ রাজনীতি থেকে করপোরেট। সবখানেই তংকার ডংকা। একটি চমৎকার ব্যবসা,পুঁজি বেশী লাগে না। শুধু মাত্র বেসরকারি থাকাকালীন পুলিশের কিছু লাথি গুঁতা খাওয়ার পুঁজি থাকলেই কেল্লা ফতে!

তারা সব কিছুই করছে জনগনের জন্য কিন্ত জনগন যে তাদের সেবা থেকে মুক্তি চায়, জনগনের এ কথা শোনার জন্য বিধাতা ছাড়া এখন আর কেউ নেই। তাই জনগন বিধাতার কাছেই ফরিয়াদ জানায়

হে বিধাতা তুমি তো আর নবী পাঠানোর অপশন রাখনি,শেষ নবী পাঠিয়ে দিয়েছ কিন্তু আমাদের জন্য যে একজন দেবদূত বড্ড বেশী দরকার।আমাদেরও যে আর কোন অপশন নেই।