ক্যাটেগরিঃ দিনলিপি

 

এই শুক্রবারে নীলক্ষেতে গিয়েছিলাম এক কাজে; পাসপোর্টের জোড়া পাতা খোলাতে। রাস্তায় বিজ্ঞাপন দেখে একটা নাম্বারে ফোন দিয়েছিলাম; মেসেজে জানলাম এতে লাগবে ৯০০ টাকা আর এক ঘণ্টা সময় সাথে নানা ভং চং! সন্দেহ হলো!

সব কাজের কাজী নীলক্ষেতে মাত্র ১০০ টাকায় কাজ শেষ তাও মাত্র ১০ সেকেন্ডে। ইলেকট্রিক আয়রনের এক হিটে টপাস করে জোড়া পাতা খুলে গেল। বেঁচে গেল ৮০০ টাকা! এখন কি করি?

প্রথমেই কিনে ফেললাম, বসের(!) মানে হিটলারের ‘মাইন ক্যাম্ফ’ মাত্র ৭০ টাকায়, এত অল্পতে তার বই বিক্রি হচ্ছে জানলে- বস সবগুলারে ধরে ক্যাম্পে পাঠাইত; হালুয়া বাইর করতো নিশ্চিত!। তারপর কিনলাম, মারিও পুজো’র গডফাদার ও দ্যা লাস্ট গডফাদার। যদিও গডফাদারটা অনেক আগেই কেনা ও পড়া ছিল। অফিসে রাখা ছিল। সময়ে অসময়ে ফাঁকতালে পড়তাম। ভাল লাগতো! নিজেকে ভিলেন ভিলেন লাগতো। শেষে সে নিজেই আমাকে ফাঁকি দিয়ে সব  সহ পুড়ে গেছে!

তারপর কিনলাম- শ্রীমদ্ভগবত গীতা (নিত্য পাঠ) আর শ্রী গীতা! ভাবলাম অনেক তো হল, এবার ধর্মে মন দাও, সুকান্ত!

সবশেষে অনেকদিন পর টাকা খরচ করে আরাম পেলাম! খুশি মনে বাসায় ফিরলাম !!!

০৭/১২/২০১৪