ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি

সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন ঘোষণা হওয়ার পর থেকেই চারদিকে ব্যাপক রঙ্গ শুরু হয়ে গেছে। প্রথমেই টানা ৯৩ দিনের অবরোধ উঠে গেছে হটাৎ করেই। ম্যাডাম আদালতে গেছেন কোন ঝামেলা না করে; আবার চুপচাপ অফিস ছেড়ে বাসায়ও গেছেন; অবরোধের মধ্যেও গাড়িতে চড়ে গেছেন। আবার আদালত তাকে সমীহ করে জামিনও দিয়েছেন; সরকারও হুমকি ধামকি করা বাদ দিয়ে তার নামে চালু হওয়া একটার পর একটা মামলা পিছিয়ে দিচ্ছে; অবশ্য যা হচ্ছে তা আদালতই করছে।

অপরদিকে আম জনতা পেট্রোল বোমার কথা বেমালুম ভুলে গেছে। ভুলে গেছে ফাঁসি-টাসির কথাও। মেতে উঠছে নির্বাচন নিয়ে।

নির্বাচনে প্রার্থী নিয়ে তেমন কোন হৈ চৈ না হলেও মার্কা নিয়ে হয়েছে ব্যাপক মজা। ইলিশ মাছ থেকে মগ, হাতি থেকে কমলালেবু, বাস থেকে আরও আরও কি যেন দেখলাম। তবে হারিকেন মার্কা না দেখে মনটা বলছে- কি যেন নাই? কি যেন নাই? তবে মন ভরেছে টিফিন কেরিয়ার মার্কা দেখে!

রাস্তায় দেখলাম মিষ্টি লাউ, কাঁটা চামচ নিয়ে মিছিল হচ্ছে। এসব দেখে আমার খালি স্যাটায়ার লিখতে ইচ্ছে করছে! ভাবছি এবার ‘বাস’ নিয়ে একটা লিখবো! ইলিশ নিয়ে লেখা তো শেষ।

সবচেয়ে ভেজাল বাঁধছে- কার কোন মার্কা সেটা মনে রাখা নিয়ে? বুজতে পারাটা ক্রমেই জটিল হচ্ছে! আমাদের মহল্লায় কে যে কার মিছিল করছে সেটা বুঝতে পারছি না! সবশেষে, কে যে কার ভোট পাবে সেটাও ধুলায় অন্ধকার!

দূরের রাস্তা থেকে ভেসে আসা শব্দে ‘মাইকিং’ শুনছি-

ভোরের পাখি দিচ্ছে ডাক
জাহান ভাই ভোট পাক।
ভোট চাই ভোটারের
দোয়া চাই সকলের!

ভায়েরা আমার, আগামী ২৮ তারিখে জাহান ভাইকে ‘টিফিন কেরিয়ার’ মার্কায় ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করে আপনাদের সেবা করার সুযোগ দিন।

ভায়েরা আমার-

‘টিফিন কেরিয়ার’ আর ‘সেবা’ কিন্তু খাপে খাপে মিলে গেছে!

দেইখেন >>>

আগের লেখাঃ ভাইয়েরা ইলিশ মার্কায় ভোট দেন

১৭/০৪/২০১৫ বিকালঃ ৫.২৮