ক্যাটেগরিঃ ক্যাম্পাস

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি)’র কয়েকজন সাংবাদিক নিয়ে আমি বেশ কিছুদিন আগে একটি পোষ্ট করেছিলাম। সেখানে তাদের মুক্তিযোদ্ধার সন্তান নিয়ে এক রকম ভণ্ডামির চিত্র হাজির করেছিলাম। নিচের লিংকে তা দেয়া আছে।

লিংক

আজ আপনাদের সামনে তাদের সংবাদ পরিবেশন নিয়ে যে রকম ভণ্ডামি রয়েছে তা উপস্থাপন করবো। সংবাদপত্র, টেলিভিশন ও অনলাইন সংবাদ মাধ্যম যা বলছে এই বছরের শুরু থেকেই বেশ কয়েকবার গণমাধ্যমের প্রধান শিরোনাম হয়েছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়। তখন কিছু কিছু সাংবাদিক পক্ষপাত দুষ্ট সংবাদ পরিবেশন করেও জাতিকে বিভ্রান্ত করতে পারেনি। কারন তারা যে অনিয়ম ও অবৈধ ভিসি শরীফ এনামুলের চামচামি করেছিলো সেই ভিসি শেষ পর্যন্ত পদত্যাগে বাধ্য হয়েছিলো।

যাই হোক দীর্ঘ আন্দোলনের পরেও এসব অপকর্ম থেমে নেই যুগান্তরের গোলাম মুজতবা ধ্রুব ও কালের কণ্ঠের ইমন রহমানের। মুক্তিযুদ্ধের সন্তান মিথ্যাচারের মাধ্যমে নব নিয়োগপ্রাপ্ত ভিসি অধ্যাপক আনোয়ার হোসেনকে ‍মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে ফলাও করে সংবাদ পরিবেশন থেকে কারো বুঝতে বাকি ছিল না (ঠাকুর ঘরে কেরে আমি কলা খাই না)। চোরের মনে পুলিশ পুলিশ।
নিজেদের মুক্তিযোদ্ধার সন্তান পরিচয় দিলেও তারা যে ক্যাম্পাসের শিবির নিয়ন্ত্রণ করে তা এখন প্রমাণিত।

বিভিন্ন বিতর্কের পর জাবিতে গত ২০ জুলাই উপাচার্য প্যানেল নির্বাচনের পর সেই শরীফের মনোনীত সিনেটররা তাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করে। অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন নির্বাচিত হন দ্বিতীয় হয়ে। এই ফলাফলের পর ফের পুরনো পথে ফিরে গেছে ওই ভন্ড সাংবাদিকরা। তাদের সংবাদে অধ্যাপক আনোয়ারের পরিবর্তে স্থান পাচ্ছে দুর্নীতিবাজ এনামুল কবীর। তারা বলছে ভোটে পরাজিত কাউকে মেনে নেয়া হবে না।

যুগান্তরে সেই ভূয়া সংবাদ। যার কোন সত্যিকার ভিত্তি নেই।

অথচ নিয়ম বলছে তিন জন নির্বাচিত ভিসির মধ্যে আচার্য রাষ্ট্রপতি যেকোন একজনকে নিয়োগ দেবেন। তাহলে এই মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা কি রাষ্ট্রপতির চেয়েও এগিয়ে!!!!!!!!!!!!!!
আসল কথা হল। প্রথম আলোর এই সংবাদটি।

লিংক

আরেকটি বিষয় দেখলাম, আজকের যুগান্তরের সংবাদে বলা হল শিক্ষক শিক্ষার্থীরা নাকি শরীফ এনামুল ভিসি না হলে এক যোগে আন্দোলনে নামবে। অথচ সর্বশেষ প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর জানিয়েছে, পদত্যাগী ভিসিকে আবার নিয়োগ দেয়া হলে সম্মিলিত আন্দোলনে নামবে তারা।

এত সব মিথ্যাচার আর পল্টিবাজির পরেও কি আমারা তাদের ভণ্ড বলবে না।

ভণ্ড সাংবাদিকদের কাছ থেকে সাবধান!!