ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি

 

সংসদ বর্জনের প্রয়োজন আছে(!)
তাই এর বিপক্ষে কোন আইন প্রণয়ন করা যাবে না।
হরতাল সাংবিধানিক অধিকার,
এটা বন্ধ করা অসাংবিধানিক।
একদিন ভাল ছিলাম রে-
তাই ছাত্র রাজনীতি বন্ধ করা যাবে না।
একদিন প্রয়োজন ছিল,
তাই শিক্ষক রাজনীতি চলবে।
রাজনৈতিক বিবেচনায় মামলা প্রদান।
রাজনৈতিক বিবেচনায় মামলা প্রত্যাহার।
জনগণই ক্ষমতার উৎস(!)
রাজনীতিবিদগণ তাদের সেবক মাত্র(!)
পূর্ববর্তী সরকারের নেয়া প্রকল্প বাদ,
দেশের স্বার্থে(!)নতুন প্রকল্প গ্রহণ ও বাস্তবায়ন।
দলীয় প্রধানের সিদ্ধান্তই শিরোধার্য,
গণতন্ত্রের জন্যে প্রাণপাত(!)
ভারতকে রাগানো যাবে না,
সবচেয়ে বড় দেশপ্রেমিক(!)
ক্রসফায়ার, গুম, বিনাবিচারে জেল থাকবে,
কেননা দেশ শাসনে এর বিকল্প নেই(!)

যত দ্রুত সম্ভব দেশের সকল নাগরিককে রাজনৈতিক দল গুলোর অঙ্গ সংগঠনের সদস্য করে নিতে হবে। প্রয়োজনে নতুন করে অঙ্গ সংগঠন তৈরি করতে হবে। যেমন: শিশু লীগ, ভিক্ষুক দল, ভবঘুরে সমাজ ইত্যাদি।
আপনি কি সহমত পোষন করেন? না করলে আমি ভুল।