ক্যাটেগরিঃ মুক্তমঞ্চ

uDebjyoti52_pic5
আপনি চাইলেও অনেক কথাই বলতে পারবেন না। আপনার রুচি বোধ, আপনার শিক্ষা, আপনার ভব্যতা জ্ঞান আপনাকে সবিস্তারে বলতে বাধা দেবে। কখনো কখনো অনেক কথা বলা থেকে আপনাকে বিরতও রাখবে।

কিন্তু তার প্রেক্ষিতে আপনি যা করলেন বা করছেন সেটা সবাই দেখছে। আর সেই দেখাটাই তখন হয়ে ওঠে একমাত্র সত্য আর তার পেছনের যে কার্য কারন তা থেকে যায় আড়ালে। আড়াল থেকেই এক সময় তা হারিয়ে যায় দৃশ্যপট থেকেও। একবার ভাবুন তো তখন আপনি কতটা অসহায় !

হ্যা, এমন দুঃসময়ও কখনো কখনো কাউকে পারি দিতে হয়। একদিকে অব্যক্ত যন্ত্রণাগুলো কুঁড়ে কুঁড়ে খায় অন্যদিকে ফুরসুৎ মেলে নে স্বস্তিতে নিঃশ্বাস নেয়ার। আর তার থেকেও বড় যন্ত্রণা হয়ে দেখা দেয় উল্টো দোষী সাব্যস্ত হওয়ার।

আমরা যারা মধ্যবিত্ত বা নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেণীভুক্ত তাদের কাছে সমাজ হল এমন একটি বিষয় যাকে সহ্য করা বাধ্যতামূলক। যার অনুশাসনও অনেকটা ধর্মীয় বিধানের মত যা দুর্লংঘনীয়। অথচ এই সমাজেই আবার জাতে উঠতে সারাজীবন কাঠখড় পোড়াতে হয় কিন্তু ধিক্কৃত হতে লাগে ক্ষণকাল মাত্র। আর সেই ভয়েই জীবন ভর আমরা কত যে নারকীয় যন্ত্রণা সয়ে যাই! তার ইয়ত্তা নেই।

এর জন্য মূলত সমাজ দায়ী নয় দায়ী আমরা নিজেরাই। প্রত্যেকের একটা নিজস্ব জগত আছে তাকে সেই জগতের বাইরে গিয়ে অবস্থানের সুযোগ নেই। সেটা করতে হলে হয় তাকে স্বকীয়তা ভুলে নতুন জগতের সাথে মিশে যেতে হবে। নয়ত অন্যকে নিজের জগতে একাকার করে নিতে হবে। কঠিন বাস্তবতা হল দুটোর কোনটাই সম্ভব হয়ে ওঠে না।

দুই জগতকে এক করে নতুন জগত তৈরির প্রচেষ্টায় জীবনটাই বরবাদ হয়, লাভের লাভ কিছুই হয়না। আপনি নিজের জগত যেমন ছারতে পারবেন না তেমনি অন্যকেও তার জগত ছাড়াতে পারবেন না। তারপরেও যদি সেটা করতে চান তাহলে দোটানার সেই জীবনে তিক্ততা ছাড়া আর কিছুই মিলবে না। মিলতে পারেও না।

কাজেই প্রত্যেকের নিজের জগত সম্পর্কে একটি সুস্পষ্ট ধারনা থাকা উচিৎ। যার নেই তার স্বজনদের উচিৎ সেই ধারনা প্রদান করা। কোন কারণেই নিজের জগতের বাইরে গিয়ে অবস্থান নেয়ার চেষ্টা না করাই বুদ্ধিমানের কাজ। তারপরেও যারা সেই ব্যর্থ চেষ্টা করেন হাফ ছেরে বাচতে হলেও একদিন তাদের সেই ঠুনকো জগতের মায়া ত্যাগ করে বেরুতেই হয়। এক সময় ফিরতেই হয় নিজের চৌহদ্দিতে। যা তার মননে-মগজে, দেহে-প্রাণে একাকার হয়ে আছে। মাঝখানে কেটে যায় সুবর্ন সমইয় যা কোনকিছুর বিনিময়েই আর ফেরে না। ফেরানো যায় না।

kmgmehadi@gmail.com