ক্যাটেগরিঃ আইন-শৃংখলা

1448291787

ঘৃণা, হ্যাঁ একমাত্র ঘৃণাই পারে জঙ্গিবাদকে নির্মূল করতে। সে ঘৃণা উঠে আসতে হবে সমাজের সর্বনিম্ন স্তর থেকে আর পৌঁছুতে হবে সর্বোচ্চ শেখরে। সমাজের পড়তে পড়তে এই ঘৃণা জন্মাতে হবে বিপুল আক্রোশে। তবেই সম্ভব জঙ্গিবাদকে নির্মূল করা।

প্রশ্ন হল সত্যিই কি আমরা জঙ্গিবাদকে ঘৃণা করি? মুখে যে যাই বলুক, জঙ্গিবাদ নিয়ে দ্বিধান্বিত মানুষের সংখ্যাটা কিন্তু এ দেশে একেবারে কম নয়। এ দেশে বিপুল সংখ্যক মানুষ জঙ্গিবাদ বিষয়ে হয় দ্বিধান্বিত, নয়তো একে প্রচ্ছন্নভাবে সমর্থন করে। আর সে কারণেই আজ এতদিন পরে এসে একটি সংগঠন নামকাওয়াস্তে এর বিরুদ্ধে বিবৃতি প্রদান করে দায় সারতে চাইছে।

আমরা জানি সমাজে প্রতিটি স্তরে কারা ক্রমাগত জাতিগত বিদ্বেষ ছড়িয়ে যাচ্ছে। সরকার তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে না বরং তাদের দাবি পূরণ করে যাচ্ছে। একদিকে জঙ্গিবাদের মানসিকতা তৈরি করবেন তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবেন না অন্যদিকে জঙ্গিবাদ দমনে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দিবেন এটা তো কোন কাজের কথা হলো না।

আমরা তো দেখছি না সর্বস্তরের মানুষকে জঙ্গিবাদ বিরোধী স্লোগান নিয়ে রাস্তায় বেরিয়ে আসতে। আমরা তো দেখছি না এদেশের আলেম সম্প্রদায় জঙ্গিবাদ বিরোধী কোন সমাবেশ করছে। আমরা এও দেখছি না, কোন একটি রাজনৈতিক দল শুধুমাত্র জঙ্গিবাদকে ইস্যু করে একটি মহা সমাবেশের ডাক দিয়েছে। তাহলে কি ধরে নেব যারা জঙ্গিবাদ বিরোধী কথা বলছেন তারা আসলে একটা প্রতারণামূলক অবস্থান বেছে নিয়েছেন।

অত্যন্ত জনবহুল স্বল্প আয়তনের একটি দেশ বাংলাদেশ। এরই মধ্যে এই জঙ্গিরা বেড়ে উঠছে, প্রশিক্ষণ নিচ্ছে, একটির পর একটি অঘটন ঘটাচ্ছে। এটা কি করে সম্ভব যদি এ দেশের মানুষ সত্যিই জঙ্গিবাদকে ঘৃণা করত!

বাংলাদেশের অন্যতম বড় রাজনৈতিক দল বিএনপি যাদের কাছে জঙ্গিবাদ নয় তথাকথিত গণতন্ত্রই এদেশের প্রধান সমস্যা, তারা এই স্বাধীনতা দিবসেও গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের শপথ নেন জঙ্গিবাদ নির্মূলের নয়। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর নেয়া জঙ্গিবাদ বিরোধী প্রতিটি অভিযানে বিএনপির পক্ষ থেকে যে সন্দেহ প্রদর্শন করা হয় সেটি কার স্বার্থ রক্ষা করছে?

আমাদের সামনে জ্বলন্ত প্রমাণ আফগানিস্তান। আমরা কি সেখান থেকে কিছু শিখতে পেরেছি? জঙ্গিবাদ এমনই এক সমস্যা যার থেকে বেরিয়ে আসতে হলে সমগ্র জাতিকে একাট্টা হতে হবে। এখন পর্যন্ত সে ধরনের কোন লক্ষণ দেখা যাচ্ছে না। কাজেই সহসা যে এর থেকে মুক্তি মিলবে সেটা ভাবার কোন কারণ নেই। এ জাতিও হয়তো একদিন জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে একাট্টা হবে তবে তা চূড়ান্ত সর্বনাশ ঘটে যাওয়ার পরে যেন না হয়।

kmgmehadi@gmail.com